বুধবার, ৯ অক্টোবর, ২০১৯

ভয়াবহ স্মোমনরু ভাইরাসে প্রতিদিন আক্রান্ত ৪৭০০ কম্পিউটার

ভাইরাস বা ম্যালওয়্যার কম্পিউটার এবং মোবাইল ফোন ব্যবহারকারীদের জন্য একটি আতঙ্কের নাম হয়ে দাঁড়িয়েছে। নিত্যনতুন ভাইরাস তৈরি করে মানুষকে ক্ষতিসাধন করে চলছে একদল মানুষ। এরই ধারাবাহিকতায় নতুন ম্যালওয়ার বা ভাইরাসের  সন্ধান পেয়েছে নিরাপত্তা গবেষণা কেন্দ্র। ভাইরাসটি ব্যবহারকারীর কম্পিউটারে  প্রবেশ করে ব্যবহারকারীর অনেক গুরুত্বপূর্ণ ডকুমেন্ট হাতিয়ে নেয়। ভাইরাসটি তৈরি মূলত 'থ্রোজেন' ম্যালওয়ারের আদলে। এটিও ত্রজন ম্যালওয়ারের মতোই কম্পিউটারকে আক্রান্ত করে তথ্য চুরির কাজ করে থাকে। ভাইরাস থ্রোজেন ম্যালওয়ারের মডিউলে তৈরি। ভাইরাসটির নাম হচ্ছে 'স্মেমনরু'(Smomanaru)

⏩Ransomware ভাইরাস থেকে মুক্তি উপায়!
Smomanaru virus detect
চলতি বছরের আগস্ট মাসে ভাইরাসটি 90 হাজারের বেশি কম্পিউটারকে আক্রান্ত করেছে। এবং প্রতিদিন "স্মোমনরু" ভাইরাসটি  4700 কম্পিউটারকে আক্রান্ত করছে।স্মোমেনরু ভাইরাসের মূল লক্ষ্য ছিল ইতালি। এছাড়াও চীন,রাশিয়া,যুক্তরাষ্ট্র, তাইওয়ান এবং ব্রাজিলের ব্যবহারকারীদের সবচাইতে বেশি আক্রান্ত করছে বলে জানা যায়।তবে স্মোমেনরু  ভাইরাসটির মূল লক্ষ্য ইতালির একটি বড় নেটওয়ার্ক হওয়াতেও   ইতালির মোট মাত্র 65 টি কম্পিউটার আক্রান্ত হয়েছিল তখন।
most hearmfull malwar
 তবে উল্লেখিত দেশগুলোর ভাইরাসে আক্রান্ত বেশি হওয়ার মানে এই নয় যে অন্যান্য দেশগুলো এর থেকে নিরাপদ। ভাইরাস থেকে নিরাপদ থাকতে অবশ্যই আমাদের সতর্ক থাকতে হবে এবং ভাইরাস প্রবেশ করতে না পারে সে বিষয়ে খেয়াল রাখতে হবে।

⏩ভাইরাস কি!ও এর ক্ষতির কারন ও প্রতিকার!

স্মোমেনরু  ভাইরাসটি উইন্ডোজের(Windows) বেশ কয়েকটি  সিস্টেমকে আক্রান্ত করেছে বলে জানা যায়। আর এখানে ভাইরাসটির থেকে  নিরাপদ থাকতে আমাদের সতর্ক থাকতে হবে এবং অবশ্যই এন্টিভাইরাস ব্যবহার করতে হবে ইন্টারনেট ব্যবহারে সতর্ক হতে হবে।
Disqus Comments

ইমেইল সাবস্ক্রিপশন